Wednesday, April 25, 2018
Home > রাজ্য > পদ থেকে ইস্তফা দিতে চান মেয়র!কেন সরতে চান তিনি জোর জল্পনা

পদ থেকে ইস্তফা দিতে চান মেয়র!কেন সরতে চান তিনি জোর জল্পনা

নিউজ ডেস্ক : ডিভোর্স নিয়ে চাপে মমতার মন্ত্রিসভার গুরুত্বপূর্ণ সদস্য অন্যদিকে কলকাতার মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়। নারদ তদন্তের চাপ তো আছেই আবার আছে ত্রিফলা কেলেঙ্কারির চাপ!

তার সঙ্গে নতুন যুক্ত হয়েছে সম্পত্তি নিয়ে তদন্তের চাপ। আর এই সব কিছু নিয়ে মানসিক ভাবে ক্লান্ত কলকাতার মহানাগরিক। এরই মধ্যে স্ত্রী রত্নার সঙ্গে বিবাহবিচ্ছেদের মামলা শুরু হয়েছে। মানসিক ভাবে চাপে থাকা ক্লান্ত কাননকে এবার প্রকাশ্যে ধমক দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা।

আলিপুর জেলা আদালতে বিবাহ বিচ্ছেদের মামলা দায়ের করেছেন শোভন। স্ত্রী রত্না নিয়ে শোভনের অভিযোগ, টাকা অপব্যবহারের পাশাপাশি, রত্নার খরচের বহর গত কয়েক বছরে এতটাই বেড়ে গিয়েছিল যে, তাঁর পক্ষে আর সামাল দেওয়া কিছুতেই সম্ভব হচ্ছে না।

আর এই কারণেই শুরু হয়েছে পারিবারিক অশান্তি এবং তা প্রকাশ্যেও আসছে। বিব্রত দলও। কারণ, শোভন চট্টোপাধ্যায় দলের দক্ষিণ ২৪ পরগনার সভাপতি। স্ত্রী রত্না আবার ওই জেলারই মহিলা তৃণমূল কংগ্রেসের সভানেত্রী। শোভনের শ্বশুর দুলাল দাস আবার ওই জেলারই মহেশতলা পুরসভার চেয়ারম্যান। স্বাভাবিক ভাবেই মেয়রের পারিবারিক বিবাদে ক্ষতিগ্রস্ত তৃণমূলের ভাবমূর্তি। আর তা নিয়ে যে দলনেত্রী রীতিমতো রুষ্ট তা স্পষ্ট করে দিলেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।
বিধানসভার করিডরে সকলের সামনেই তৃণমূলনেত্রী মেয়রকে বেশ ধমক দেন বলে খবর। বলেন, তিনি কি শুধু মামলাই লড়বেন নাকি কাজও করবেন? মুখ্যমন্ত্রীর এই বক্তব্য থেকে স্পষ্ট তিনি বেজায় চটে আছেন কলকাতার মেয়রের উপর।
মুকুল পরবর্তী সময়ে মেয়রকে নিয়ে তৃণমূল দুটি ভাগে বিভক্ত। এখন দেখার তৃণমূল সুপ্রিমো এই সমস্যাকে কি করে সমাধান করে দলের ঐক্যকে বজায় রাখেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *